এই পুরুষকে ভালোবেসে চিরকাল অবিবাহিতই থেকে গেলেন সংগীতশিল্পী লতা মঙ্গেশকর!

নিজস্ব প্রতিবেদন : সংগীত জগতের অভাবনীয় শিল্পীদের মধ্যে অন্যতম হচ্ছেন লতা মঙ্গেশকর। যেভাবে দীর্ঘ সময় ধরে নিজের কন্ঠের জাদু দিয়ে সমস্ত দেশবাসীকে আচ্ছন্ন করে রেখেছিলেন লতা তা হয়তো খুব কম সঙ্গীতশিল্পী পারবে। সম্প্রতি চলতি বছরে সরস্বতী পুজোর পরের দিন ইহজগত ত্যাগ করেন এই কন্ঠ শিল্পী। তবে তার মৃত্যুর পরেও তার জীবন নিয়ে অনেক প্রশ্ন অনুরাগীদের মনে কিন্তু রয়েই গেছে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য জীবনে চরম সাফল্য পাওয়া পরেও কখনো বিয়ে করেননি লতা মঙ্গেশকর। সবসময় পরিবার এবং নিজের সংগীতকেই সময় দিয়ে গিয়েছেন তিনি। শোনা যায়, কম বয়সে কাউকে খুব বেশি রকমের ভালবাসতেন লতা। ঠিক সেই কারণেই কি তবে আর কখনো বিয়ে করতে চাননি তিনি? আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা জেনে নেব জনপ্রিয় কন্ঠশিল্পী লতা মঙ্গেশকর সম্পর্কে কিছু অজানা তথ্য। চলুন তাহলে আর দেরি না করে আমাদের এই বিশেষ প্রতিবেদনটি শুরু করা যাক।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য মাত্র ৪২ বছর বয়সে পরপারে চলে যান লতার বাবা দীননাথ মঙ্গেশকর। দীননাথ তার পরিবারের জন্য তেমন কোনো সম্পদ রেখে যাননি। পাঁচ সন্তানের ভবিষ্যৎ চিন্তায় মা সুধামতী তখন দিশেহারা। শেষ পর্যন্ত মাত্র ১২ বছর বয়সে সংসারের হাল ধরেন লতা মঙ্গেশকর।১৯৪২ সালে মারাঠি সিনেমায় গান গেয়ে ক্যারিয়ার শুরু করেন লতা। ১৯৪৬ সালে তিনি প্রথম হিন্দি সিনেমার জন্য গান করেন। ভাই হৃদয়নাথ এবং ছোট তিন বোন মীনা, আশা, উষা যখন নিজের পায়ে দাঁড়িয়েছে- তখন আর সংসার করার সুযোগ হয়ে ওঠেনি লতার।

সর্বদা নিজের পরিবারকেই প্রথমে প্রাধান্য দিয়েছেন এই সংগীত শিল্পী। কিন্তু এছাড়াও ব্যক্তিগত জীবনে কিন্তু একজনকে অত্যন্ত বেশি রকমের ভালবাসতেন লতা। সেই মানুষটি হলেন ডুঙ্গারপুর রাজবংশের ছেলে মহারাজা রাজ সিংহ। মহারাজা রাজ সিংহ ছিলেন ক্রিকেটপ্রেমী। তিনি দীর্ঘ ২০ বছর বোর্ড অফ কন্ট্রোল ফর ক্রিকেট ইন ইন্ডিয়ার (বিসিসিআই) দায়িত্বে ছিলেন।

মহারাজা রাজ সিংহ ছিলেন লতা মঙ্গেশকরের ভাই হৃদয়নাথের ঘনিষ্ঠ বন্ধু। এ কারণে তিনি মাঝেমধ্যেই লতা মঙ্গেশকরের বাড়িতে আসতেন। সেখান থেকে তাদের আলাপ-পরিচয় শুরু হয়। ধীরে ধীরে তাদের সম্পর্ক প্রেমে পরিণত হয় এবং তারা বিয়ে করার সিদ্ধান্ত নেন। কিন্তু এই বিয়ের জন্য রাজি ছিলেন না রাজ সিংহের বাবা মহারাওয়াল লক্ষ্মণ সিংহ। তার বক্তব্য ছিল, লতা মঙ্গেশকরের একজন সাধারণ বাড়ির মেয়ে। তার ছেলের বিয়ে হবে কোন রাজকীয় পরিবারে।

তবে সব থেকে আশ্চর্যের ব্যাপার কি জানেন শুধুমাত্র লতা মঙ্গেশকর নয় রাজ সিংহ নিজেও কিন্তু কোনদিন বিবাহ করেননি। সম্ভবত নিজের জীবনসঙ্গিনী হিসেবে লতা মঙ্গেশকরকে না পেয়ে আর কখনোই অন্য কোন মানুষকে মন দিতে পারেননি তিনি। বহুদিন আগে এক জনপ্রিয় সংবাদমাধ্যমে সাক্ষাৎকার দেওয়ার সময় লতা মঙ্গেশকরকে যখন তার ভালোবাসার মানুষ সম্পর্কে প্রশ্ন করা হয়েছিল তিনি জানিয়েছিলেন,”কিছু জিনিস থাকে হৃদয়ের মধ্যে থাকার। আমাকে সেই জিনিস হৃদয়ের মধ্যেই রাখতে দিন”।

Back to top button