শাড়ি দীর্ঘদিন নতুনের মত রাখতে হলে মেনে চলুন এই কার্যকরী ৫ টি টিপস।

নিজস্ব প্রতিবেদন: শাড়ি এক অত্যন্ত জনপ্রিয় ভারতীয় পোশাক। ভারতীয় মহিলাদের মধ্যে শাড়িকে কেন্দ্র করে এক আলাদাই উন্মাদনা রয়েছে। বিভিন্ন বিশেষ দিনে অথবা কোনো অনুষ্ঠানের দিনে বেশিরভাগ মহিলাই শাড়ি পরে নিজেকে সুন্দরভাবে সাজিয়ে তোলেন।

ভারতবর্ষের বিভিন্ন রাজ্যে বিভিন্ন ধরণের শাড়ি প্রচলিত রয়েছে। কিছু উল্লেখযোগ্য ও বিশিষ্ট শাড়ি হল- বেনারসী, কাতান, স্বর্ণচরী, বালুচরী, সিল্ক, তাঁত, কটন, কাঞ্জিভরম, ইক্কত, হ্যান্ডলুম, লিনেন, গাদোয়াল, গরদ, তসর, পিওর সিল্ক, কেরালা কটন প্রভৃতি।

দুর্গাপুজোর এই মরশুমে শাড়ি পরার প্রবণতা অনেকাংশে বৃদ্ধি পায়। তবে শুধু শাড়ি পরলেই হয় না, সেই শাড়িকে অত্যন্ত যত্নসহকারে তুলেও রাখতে হয়। আজকের প্রতিবেদনে রইল এমন কিছু টিপস যা অবলম্বন করলে বহু সময় ধরে শাড়ি একেবারে নতুনের মতো থাকবে।

১) শাড়ি রাখার সময় ভালোভাবে রাখতে হবে। যেমন- তেমন ভাবে শাড়ি রাখলে সহজেই নষ্ট‌ হয়ে যাবে। শাড়ি ভালো করে ভাঁজ করে হ্যাঙ্গারে করে ঝুলিয়ে আলমারিতে রাখা হলে শাড়ি ভালো থাকবে।

২) শাড়ি পরে বাইরে যাওয়া হলে স্বাভাবিকভাবেই ঘামে ভিজে যায়। রোদে দিয়ে ঘাম শুকিয়ে তবেই শাড়ি ভাঁজ করে তুলে রাখতে হবে। ঘাম না শুকিয়ে শাড়ি ভাঁজ করা‌ হলে নষ্ট হয়ে যাবে।

৩) শাড়ি কাচার সময় খুব বেশি ডিটারজেন্ট ব্যবহার করা যাবে না। সারারাত ডিটারজেন্ট- জলে ভিজিয়ে রাখলে বা ঘষে ঘষে শাড়ি কাচা হলে শাড়ির রং নষ্ট হয়ে যাবে।

Add a salt to boiling water in pot on black background, slow motion 250 fps

৪) শাড়ি কাচার সময় একটু নুন দিয়ে কাচলে শাড়ি ভালো থাকবে। যদি নতুন শাড়ি কেনার পরেই একটু নুন দিয়ে কাচা হলে রং নষ্ট হবে না।

৫) শাড়ি কাচার পর ইস্ত্রি করার সময় খুব বেশি গরম করা যাবে না। অতিরিক্ত গরম আয়রন দিয়ে ইস্ত্রি করা হলে শাড়ি নষ্ট‌ হয়ে যাবে। বিশেষত জরি দেওয়া শাড়ির ক্ষেত্রে এই বিষয়টি খেয়াল রাখতে হবে।

Back to top button