১৯ বছর ধরে একভাবে দাপিয়ে অভিনয় করার পরেও আঙ্গুল তুলতে পারেনি কেউ, লাগতে দেয়নি চরিত্রে কোনো দাগ! অভিনেত্রী কোয়েল সত্যিই একটু আলাদাই!

নিজস্ব প্রতিবেদন: টলিউড ইন্ডাস্ট্রির প্রথম সারির অভিনেত্রীদের মধ্যে অন্যতম কোয়েল মল্লিক। বিগত কয়েকদিন ধরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় জোর চর্চা শুরু হয়েছে এই অভিনেত্রীকে নিয়ে। এমনিতেই তার নেট মাধ্যমে ফলোয়ার সংখ্যা কম নয়। মুহূর্তেই তার শেয়ার করা যে কোনো ছবি বা ভিডিও দর্শকদের মাঝে ভাইরাল হয়ে ওঠে। তবে কোয়েল মল্লিককে নিয়ে এই চর্চার পেছনে কিন্তু রয়েছে একাধিক কারণ।

২০০৩ সালে নাটের গুরু চলচ্চিত্রের মাধ্যমে ইন্ডাস্ট্রিতে পা রেখেছিলেন কোয়েল। সব থেকে আশ্চর্যের ব্যাপার অভিনয় জগতের সঙ্গে যুক্ত থেকেও সেই ২০০৩ সাল থেকে এখনো পর্যন্ত তাকে কেন্দ্র করে কিন্তু ইন্ডাস্ট্রিতে কোনো রকমের বিতর্ক তৈরি হয়নি। এমনকি বিগত ১৯ বছরে কেউ সাহস পাননি কোয়েল মল্লিকের চরিত্রের উপর আঙুল তোলার। এত বড় স্টার হওয়া সত্বেও কোন রকমের বেড সিন বা কিসিং সিনে অভিনয় করেননি নায়িকা।

জানলে অবাক হবেন অনুরাগ বসুর বিখ্যাত সিনেমা গ্যাংস্টারের কঙ্গনা রানাওয়াতের জায়গায় অভিনয় করার কথা ছিল কোয়েল মল্লিকের। কিন্তু পর্দায় অতো ঘনিষ্ঠ দৃশ্যে অভিনয় করবেন না বলে কোয়েল মল্লিক ফিরিয়ে দিয়েছিলেন বলিউডের এই অফারকে। সম্প্রতি নেট মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে উঠে এসেছে কোয়েল মল্লিকের একটি ছবি। যে ছবিতে স্বামী আর বাবার হাত ধরে হাটছেন তিনি। এই ছবিটি ভাইরাল হওয়ার পরে অনেকেই কিন্তু প্রশংসা করছেন অভিনেত্রীর বাবা রঞ্জিত মল্লিকের শিক্ষার।

নেটিজেনদের মতে আজকের দিনের দাঁড়িয়ে এরকম মানুষ হয়তো দেখা যায় না। যেখানে বর্তমান সময়ে নায়িকা মানেই পাঁচ ছটি প্রেম, তিন – চারটি বিয়ে কিম্বা পিতৃপরিচয়হীন সন্তান জন্ম দেওয়াটাও ট্রেন্ড হয়ে গিয়েছে। সেই সময় দাঁড়িয়ে সাবেকি মল্লিক বাড়ির শিক্ষায় কোয়েল মল্লিককে আর পাঁচটা অভিনেত্রী থেকে অবশ্যই আলাদা করে তুলেছে সময়। বেশিরভাগ মানুষই মনে করছেন কোয়েলের শিক্ষা এবং সংস্কারের এই পুরো অবদানটাই তার বাবার রঞ্জিত মল্লিকের।

টলিউড ইন্ডাস্ট্রির বহু সুন্দরী নায়িকাদের সঙ্গে কাজ করার পরেও রঞ্জিত বাবুর নাম কিন্তু কারুর সঙ্গে জড়িয়ে পড়েনি। ২০১৩ সালে প্রযোজক নিষ্পাল সিংহ রানেকে বিয়ে করেছিলেন কোয়েল মল্লিক। তারপরেও কোয়েল দেব, জিৎ অথবা পরমব্রতর মতন স্টারদের সঙ্গে চুটিয়ে কাজ করে গিয়েছেন পর্দায়।

তবে তারপরেও কিন্তু কোন রকম নায়কের সঙ্গে পরকীয়া সম্পর্ক বা কোন রকমের অবৈধ সম্পর্কের তার নাম জড়িয়ে পড়তে শোনা যায়নি। ২০২০ সালে তিনি মা হয়েছিলেন। এই সময় কিছুদিনের জন্য অভিনয় জগত থেকে নিজেকে দূরে সরিয়ে নেন অভিনেত্রী। একজন আদর্শ মায়ের মতন তিনি সন্তানের লালন পালনে মন দিয়েছিলেন। এরপর ছেলে একটু বড় হতে না হতেই তিনি আবারও অভিনয় জগতে ফেরত আসেন।

কোনরকম ঝুট ঝামেলা থেকে শুরু করে আজ পর্যন্ত কাউকে কোয়েল প্রকাশ্যে আক্রমণ করেছেন একথাও কিন্তু বলা যাবে না। বিগত ১৯ বছর ধরেই কোয়েল মল্লিকের নাম শুনলে আমাদের মনে পড়ে সদা হাস্য মিষ্টি একজন নায়িকার কথা। বরাবর থেকেই অসাধারণ এই অভিনেত্রীর ইন্ডাস্ট্রির সঙ্গে রয়েছে শুধুমাত্র কাজের সম্পর্ক। নিজের সহজ এবং সাবলীল অভিনয় দ্বারা দর্শকদের মন জয় করে নিয়েছেন তিনি। একজন জনপ্রিয় অভিনেত্রী হওয়া সত্ত্বেও দুর্গাপুজোর দিনগুলিতে ভবানীপুরের পৈত্রিক বাড়িতে তারকাসুলভ আচরণ ছেড়ে একেবারে ঘরের মেয়ে হয়ে ওঠেন কোয়েল মল্লিক।।

সকলকে ভোগ পরিবেশন থেকে শুরু করে প্রায় অনেক কাজ করতে দেখা যায় তাকে।এই দিনগুলিতে কোয়েল মল্লিককে দেখলে কেউ বুঝতেই পারবেন না তিনি আসলে টলি কুইন। হ্যাঁ, নিঃসন্দেহে তাকে টলি কুইন বলা যায় কারণ গত ১৯ বছরে তার ঝুলিতে যতগুলো সুপারহিট সিনেমা জমা হয়েছে সেরকম হিট সিনেমা বোধহয় এখনও পর্যন্ত বর্তমান সময়ের কোন নায়িকার নেই। নিঃসন্দেহে সাফল্যের চূড়ায় থাকার পরেও অভিনেত্রী কোয়েল মল্লিক যেভাবে সকলের সঙ্গে মিলেমিশে থাকেন সেটা সবিশেষ প্রশংসার যোগ্য।। আপনাদের কোয়েল মল্লিক কে কেমন লাগে তা কিন্তু অবশ্যই আমাদের এই প্রতিবেদনের কমেন্ট বক্সে জানাতে ভুলবেন না।

Back to top button