বাড়ির ছাদে বা উঠোনে এই দুর্দান্ত গোপন ট্রিকসে করুন ধনেপাতা চাষ, মাত্র ৭দিনেই পাবেন দুর্দান্ত ফলন

নিজস্ব প্রতিবেদন: ধনে পাতা এমন একটি খাবার যা দিয়ে বিভিন্ন রেসিপি তৈরি করে বা রেসিপিতে ফ্লেভার যোগ করে খেতে কিন্তু অনেকেই পছন্দ করে থাকেন। বিশেষ করে শীতের সময় ধনেপাতার চাহিদা থাকে ব্যাপকভাবে। বেশিরভাগ মানুষই বাজার থেকে ধনেপাতা কিনে খান। তবে আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে মাত্র ৭ দিনের মধ্যেই বাড়িতে ধনেপাতা চাষ করার একটি সহজ অর্গানিক পদ্ধতি আপনাদের সাথে শেয়ার করে নেব।

আপনারা যারা ধনেপাতা চাষে আগ্রহী তারা কিন্তু ভুল করেও আমাদের এই প্রতিবেদন টি মিস করবেন না। চলুন তাহলে আর দেরি না করে আজকের প্রতিবেদনের মূল পর্বে যাওয়া যাক। এই পদ্ধতিতে প্রথমেই বাড়িতে রান্নার কাজে যে ধনে দানা ব্যবহার করা হয়ে থাকে সেগুলো নিয়ে নিতে হবে। এবার এই ধনে বীজগুলোকে হালকা প্রেসার দিয়ে ভেঙে দুটুকরো করে নিন। এবার এগুলোকে সারারাত জল দিয়ে ভিজিয়ে রাখুন।

অন্ততপক্ষে আট থেকে দশ ঘন্টা ভিজিয়ে না রাখলে ধনে থেকে গাছ বেরোতে প্রচুর সময় লেগে যাবে। এই বীজ বপন করার জন্য আপনাদের মাটি ছাড়াও নিয়ে নিতে হবে বালি গোবর এবং কম্পোস্ট সার। এর সাথে আপনারা অনুখাদ্য হিসেবে এক চামচ ফিউরিন যোগ করতে পারেন। তাহলে গাছের বৃদ্ধি আর স্বাস্থ্য খুবই ভালো হবে। তবে আপনারা চাইলে মাটি আর কম্পোস্ট মিশিয়েও ধনেপাতা গাছ চাষ করতে পারেন।

একটা টবের মধ্যে মাটি সহ অন্যান্য উপকরণগুলোকে মিশিয়ে মিডিয়া তৈরি করে নিন। জলে ভেজানো ধনে বীজ গুলোকে আপনাদের মাটির উপরে স্প্রিংকেল করে দিতে হবে। বীজগুলো এমন ভাবে ছড়াবেন যাতে খুব একটা ঘন না হয়ে যায়। এবার ওই একই মাটি দিয়ে একটা লেয়ার তৈরি করে ঢেকে দেবেন। যে টবে আপনারা বীজগুলি রোপন করলেন সেটাকে কিন্তু একেবারে সম্পূর্ণ সূর্যালোকে রাখতে হবে।

মাটির হালকা লেয়ার তৈরি করার পরে আপনাকে জল দিয়ে দিতে হবে। এমন ভাবে জল দেবেন যাতে টবের নিচ পর্যন্ত সম্পূর্ণ মাটি ভিজে যায়। বীজ রোপন করার দুই থেকে তিন দিন পরে যদি মনে হয় টবের মাটি শুকিয়ে এসেছে সে ক্ষেত্রে আবার জল প্রয়োগ করতে পারেন। খেয়াল রাখবেন খুব বেশি জল যেন না হয় কারণ সে ক্ষেত্রে ধনেপাতার বীজ পচে যেতে পারে।

মোটামুটি রোপন করার তিন দিনের মধ্যেই কিন্তু গাছ বেরোনো অর্থাৎ চারা বেরোনো শুরু হয়ে যাবে। দশ দিনের মধ্যেই ভালোভাবে চারা বেরিয়ে এটা পরিণত হতে শুরু করবে এবং পরবর্তী ২০ থেকে ২২ দিনের মধ্যে হারভেস্টিং এর উপযুক্ত হয়ে যাবে। সহজেই এবার কিন্তু এই ধনেপাতা আপনারা খাওয়ার কাজে ব্যবহার করতে পারেন।

Back to top button