ভুবন বাবুর কাঁচাবাদামের যুগ শেষ! এবার টেক্কা দিতে বাজারে এলেন দাদুর ‘কাঠি ভাজা’, চরম ভাইরাল ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন: সোশ্যাল মিডিয়া এমন একটি প্ল্যাটফর্ম যেখানে মুহূর্তের মধ্যে যে কোন জিনিস ভাইরাল হয়ে যেতে পারে, আবার অল্প সময়ের মধ্যেই কিন্তু কোন জিনিসের জনপ্রিয়তা একেবারে নিচে নেমে যেতে পারে। সম্প্রতি কিছুদিন আগেই নেট মাধ্যমের দরুন আমাদের মাঝে ভাইরাল হয়ে উঠে এসেছিলেন বীরভূমের বাদাম বিক্রেতা তথা আমাদের সকলের অতিপ্রিয় বাদাম কাকু ভুবন বাদ্যকর।

বাদাম বিক্রি করতে গিয়ে তার গেয়ে ওঠা কাঁচা বাদাম গানটি সকলের এতটাই পছন্দ হয়ে গিয়েছিল যে সুদূর দেশ থেকে বিদেশে পৌঁছে যায় এই গান। বহু সেলেব্রিটিরা কিন্তু এই গানে কোমর দুলিয়ে ছিলেন। বিশেষ করে ইনস্টাগ্রাম রিল ভিডিওর মাধ্যমে এই গান ব্যাপক পরিমাণে ভাইরাল হয়ে উঠেছিল আমাদের মাঝে। অন্যদিকে এই গানের জনপ্রিয়তার সাহায্যে কিন্তু কাঁচা বাড়ি থেকে পাকা বাড়ি তৈরি করে ফেলেন ভুবন বাবু।

শুধুমাত্র তাই নয় অল্প সময়ের মধ্যে আরো বেশ কিছু মিউজিক কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি করার পাশাপাশি একটি গাড়িও কিনে ফেলেছেন তিনি। সবমিলিয়ে তিনি এখন আর সেই বীরভূমের দুবরাজপুরের সাধারণ বাদাম বিক্রেতার জায়গায় নেই। যদিও অর্থ আসলেও সময়ের সাথে সাথে তার সেই জনপ্রিয়তা অনেকটাই হ্রাস পেয়েছে। এখন নিত্যনতুন গান কাঁচা বাদামের জায়গা দখল করে নিচ্ছে প্রতিনিয়তই।

কারণ দীর্ঘদিন সোশ্যাল মিডিয়া কাঁপিয়ে বেড়ানো এই গান বর্তমানে আর মনে লাগছে না নেটিজেনদের।‘কাঁচা বাদামে’র জনপ্রিয়তা কমলে ভুবন বাবু সময়ের সঙ্গে নিজেকে বদলে নানান ধরনের গান আনার চেষ্টা করেছিলেন। তবে সেইগুলি আর কাঁচা বাদামের জনপ্রিয়কে ছুঁতে পারেনি। বরং কোনো না কোনো দিক থেকে ভুবন বাবুকেই কিন্তু সমালোচনার মুখে ফেলেছে। এমনকি তার অনেক নিন্দুক তৈরি হয়ে গিয়েছে এর মধ্যেই। তবে এবারে বাদাম কাকুর এই গানকে টেক্কা দিতে চলে এসেছে বাজারে একটি নতুন গান। নতুন এই গানটি করেছেন হুগলি জেলার ৮৩ বছরের এক ফেরিওয়ালা দাদু। তিনি হলেন একজন কাঠি ভাজা বিক্রেতা।

পাঠকদের উদ্দেশ্যে শুরুতেই জানিয়ে রাখি,৮৩ বছরের ওই বৃদ্ধের নাম গৌড় কোলে। যদিও স্থানীয় বাসিন্দাদের কাছে তিনি ‘শ্যামলের কাঠি ভাজা’ (Kathi Vaja) নামেই জনপ্রিয়। ৮৩ বছর বয়স হয়ে গেলেও এখনো কারুর কাছে হাত পাততে পছন্দ করেন না এই দাদু। প্রতিদিন নিজের সাইকেলে করে সময় মতো কাঠি ভাজা বিক্রি করতে বেরিয়ে পড়েন তিনি। তবে তিনি যে অত্যন্ত দরিদ্র সেটা তার পায়ের জুতো দেখলেই বোঝা যায়।

যদিও সেই দিকে তার কোন রকমের মনোযোগ নেই। বরং ভেপু বাঁশি বাজিয়ে কাঠি ভাজা বিক্রির দিকেই নিজের সমস্ত আকর্ষণ টেনে ফেলেছেন তিনি। হুগলি জেলার সিঙ্গুরে বসবাস করে থাকেন এই বৃদ্ধ দাদু।শীতকালে কাঠি ভাজা, পাপড় ভাজা ইত্যাদি বিক্রি করলেও, গরমকাল এলেই শ্যামলবাবু আইসক্রিম ফেরি করতে বের হন। সব মিলিয়ে এখন কাঁচা বাদামের জায়গা দখল করে নিয়েছে এই দাদুর কাঠি ভাজা। নতুন এই ভাইরাল ভিডিও আপনাদের কেমন লাগলো তা অবশ্যই জানাতে ভুলবেন না।

Back to top button