“ঝুকুন ঝুকুন পায়ের তলার তল ঠিক পেয়ে যাবেন, কারেক্ট আছে!”, মমতার পা ছুঁয়ে প্রণাম করায় স্বস্তিকাকে ‘খামতি দিদিমণি’ খেতাব দিলেন শ্রীলেখা

নিজস্ব প্রতিবেদন: টলিউড ইন্ডাস্ট্রির অত্যন্ত জনপ্রিয় অভিনেত্রী হলেন স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায় এবং শ্রীলেখা মিত্র। দীর্ঘ সময় ধরেই অভিনয় জগতের সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছেন এই দুই নায়িকা। তবে বিগত কিছু সময় ধরেই কিন্তু বড় পর্দা থেকে অনেকটাই দূরত্ব বজায় রেখেছেন শ্রীলেখা। কম-বেশি অভিনেত্রী স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায় কিন্তু এখনও বিভিন্ন সিনেমা বা ওয়েব সিরিজে জমিয়ে কাজ করেন। চল্লিশের উপরে বয়স হলেও স্বস্তিকার অভিনয়ে এখনো কুপোকাত তার ভক্তরা। দর্শকমহলে অত্যন্ত সাহসী অভিনেত্রী হিসেবে এই দুজনেই কিন্তু পরিচিত। যে কোন ঘটনাতেই প্রতিবাদ করার সুযোগ ছাড়েন না তারা।

তবে এবারে শ্রীলেখা মিত্রের কটাক্ষের মুখোমুখি পড়লেন স্বয়ং স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য দিনকয়েক আগেই শেষ হয়ে গিয়েছে বাঙালির সবথেকে বড় উৎসব দুর্গাপুজো। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ক্ষমতায় আসার পর থেকেই কিন্তু বেশ কয়েক বছর দুর্গাপুজোর শেষে কার্নিভালের আয়োজন করা হয়ে থাকে। চলতি বছরে আবার দুর্গাপুজো ইউনেস্কোর বিশেষ স্বীকৃতি পাওয়ায় আরো কয়েকগুণ যেন মানুষের মধ্যে আনন্দ বেড়ে গিয়েছে। চলতি বছরে কলকাতায় যে কার্নিভালের আয়োজন করা হয় সেখানে বেশ কয়েকজন টলিউড তারকা উপস্থিত ছিলেন।

সেই সমস্ত তারকাদের মধ্যেই ছিলেন অভিনেত্রী স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়। স্বাভাবিকভাবেই সেখানে পৌঁছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে সরাসরি সাক্ষাৎ করেন তিনি।খুব স্বাভাবিকভাবেই হিন্দু ধর্মের সংস্কৃতির কথা মাথায় রেখে অভিনেত্রী মুখ্যমন্ত্রীর পা ছুঁয়ে প্রণাম করেন। আর বিজয়ার মিষ্টি স্বরূপ অভিনেত্রীর হাতে চকলেট গুঁজে দেন মুখ্যমন্ত্রী। আর সেই ছবি শেয়ার করে অভিনেত্রী মুখ্যমন্ত্রীর ব্যবহারের প্রশংসাই করেছিলেন।

তবে এই ঘটনার পরেই আচমকা কটাক্ষের মুখোমুখি হতে হয় স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায় কে। সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে অনেকেই কিন্তু অভিনেত্রীকে এই কাজের জন্য কটাক্ষ করেন। যদিও বিষয়টি খুবই সৌজন্যপূর্ণ তবে তা সত্বেও স্বস্তিকাকে কটাক্ষ করার এই সুযোগ ছেড়ে দেননি অভিনেত্রী শ্রীলেখা মৈত্র।স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়ের এই পোস্ট ভাইরাল হতেই অনেকে তাকে ‘মেরুদণ্ডহীন’ বা ‘চটিচাটা’ বলে উল্লেখ করেন। যদিও পাঠকদের উদ্দেশ্যে একথা জানিয়ে রাখি যে স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়ের চিন্তা ভাবনার সঙ্গে কিন্তু রাজ্যের শাসকদলের অনেকটাই মতপার্থক্য রয়েছে। কিন্তু অভিনেত্রীর পোস্ট করা এই ছবিগুলি দেখার পর যেন কেউ তাকে সহ্যই করতে পারছেন না।

এবার স্বস্তিকাকে কটাক্ষ করতে গিয়ে অভিনেত্রী শ্রীলেখা মুখ খুলেছেন। স্বস্তিকাকে কটাক্ষ করে শ্রীলেখা লিখেছেন,“খামতি দিদিমনি”। প্রত্যেক সাধারণ মানুষের কটাক্ষের উচিত জবাব অভিনেত্রী স্বস্তিকা দিয়েছিলেন। এবার নিজের সুপটু বাক্যে গুছিয়ে অভিনেত্রী স্বস্তিকাকে কড়া জবাব দিলেন “শ্রীমতি”। শ্রীলেখা মিত্রের এই মন্তব্যের পরে কিন্তু থেমে থাকেননি স্বস্তিকা ও। পাল্টা জবাব তিনিও দিয়েছেন।

শ্রীলেখা মিত্র কে উদ্দেশ্য করে স্বস্তিকা লেখেন, “আমার খামতি দিদিমণি, আপনি চোখে আঙুল দিয়ে আমায় দেখিয়ে দিলেন আমার খামতি কোথায়, আপনাদের মত হতে পারলাম না এইতো? ঝুকুন ঝুকুন পায়ের তলার তল ঠিক পেয়ে যাবেন। কারেক্ট আছে”।

স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়ের অনুরাগীরাও কিন্তু শ্রীলেখাকে নানান ধরনের কটাক্ষ করেছেন এর প্রতিবাদে। যেমন একজন নেটিজেন শ্রীলেখার পোস্টে লেখেন,“এটাকে সৌজন্য সাক্ষাৎ বলে, উনি কিন্তু মুখ্যমন্ত্রীর নিমন্ত্রিত নয়। একটা ক্লাবের হয়ে গিয়েছেন। আর যদি কোনও অনুষ্ঠানে মুখ্যমন্ত্রী থাকে সেখানে না দেখা করাটা অসামাজিকতা হয়। অবশ্য সৌজন্য বোধ মনে হয় না আপনি আদৌ জানেন”।

Back to top button