৮৫ ফুট গভীর কুয়োতে আচমকা পড়লো ছাগল শাবক! কিভাবে বাঁচালো গ্রামবাসী? দেখলে অবাক হবেন আপনিও

নিজস্ব প্রতিবেদন: একটা সময় ছিল যখন আদিম মানুষ বেঁচে থাকার তাগিদে একে অপরকে সাহায্য করত এবং সর্বদা প্রকৃতির সঙ্গে সংগ্রাম চালাত। কিন্তু যুগের পরিবর্তনের সাথে সাথেই এই চিত্র সম্পূর্ণরূপে পরিবর্তিত হয়ে গিয়েছে। সময়ের ফেরে এখন মানুষের একে অপরকে সাহায্য করার তো দূরের কথা কখনো বিপদে পড়লে ফিরেও তাকিয়ে দেখে না। তবে এহেন সময়েই সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন একটি দৃশ্য উঠে এসেছে তা দেখলে রীতিমতন অবাক হয়ে যেতে বাধ্য হবেন আপনারা।

বিভিন্ন সময়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় নিত্য নতুন জিনিস ভাইরাল হওয়া কোন নতুন বিষয় নয়। আসলে তৃতীয় বিশ্বের দেশগুলিতে সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যবহার ছড়িয়ে পড়ার পর থেকেই ক্রমাগত এখানে নানান জিনিস দেখা যায়। শিক্ষা থেকে শুরু করে বিনোদন কোন কিছুর অভাব নেই এই দুনিয়ায়। সম্প্রতি ইন্টারনেট জগতে উঠে এসেছে এক প্রত্যন্ত গ্রামের ভিডিও। চলুন জেনে নেওয়া যাক এই সম্পর্কে একটি বিশেষ প্রতিবেদন। যে ভিডিওটি নিয়ে আমরা কথা বলব সেটি এই প্রতিবেদনের সঙ্গেই যুক্ত করা আছে।

সম্প্রতি ইউটিউবে একটি ভিডিও ভাইরাল হয়ে উঠে এসেছে যেখানে দেখা যাচ্ছে একটি ৮৫ ফুট গভীর কুয়োর মধ্যে কোনভাবে একটা ছাগলের বাচ্চা পড়ে যায়। কুয়োটা এতটাই গভীর যে সেখান থেকে বাচ্চা ছাগলটির একা উঠে আসা কোন রকম ভাবেই সম্ভব ছিল না। এমতাবস্থায় স্থানীয় গ্রামবাসীরা ছাগলটিকে কুয়োর মধ্যে দেখতে পান এবং অনেক কষ্টে মোটা দড়িতে ঝুরি বেঁধে সেই ছাগলটিকে ওই গভীর কুয়ো থেকে উদ্ধার করে নিয়ে আসেন।

প্রথমদিকে যদিও এই উদ্ধারকাজে বেশ বেগ পেতে হয়েছিল তাদের। তবে বেশ কিছুক্ষণের চেষ্টার পরে তারা এতে সফল হয়। সব থেকে আশ্চর্যের ব্যাপার কি জানেন একটি ছোট্ট ছাগলকে বাঁচানোর জন্য ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে যে পুরো গ্রামের প্রায় অনেকেই চলে এসেছেন ছুটে।

ভিডিওটি মুরলিওয়ালে হৌশলা নামের এক সর্পরক্ষকের চ্যানেল থেকে শেয়ার করা হয়েছে। সম্ভবত তিনি কোন কাজে ওই গ্রামে গিয়েছিলেন এবং সেখানেই এই ঘটনা দেখতে পেয়ে গ্রামবাসীদের সাহায্য করতে এগিয়ে যান এবং ভিডিওটি তুলে আনেন।। যারা দীর্ঘ সময় ধরে সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার করছেন তারা কমবেশি এই ব্যক্তিকে সকলেই জানেন।

কারণ তার চ্যানেলে বিভিন্ন সাপ থেকে শুরু করে অন্যান্য প্রাণী উদ্ধারের অনেক রকমের ভিডিও রয়েছে যা অবাক করার মতো। বেশ কিছু সময় আগে এই ছাগল উদ্ধারের ভিডিওটি তিনি শেয়ার করে নিয়েছেন যা এখনো পর্যন্ত প্রায় দেখে নিয়েছেন ২ লক্ষ ৪৮ হাজার মানুষ। এই ভিডিওটি যদি আপনাদের ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই একটা লাইক আর কমেন্ট করে দিতে ভুলবেন না।

Back to top button